NarayanganjToday

শিরোনাম

শারীরিক সম্পর্কে রাজি না হওয়াতে খুন


শারীরিক সম্পর্কে রাজি না হওয়াতে খুন

ফতুল্লায় স্ত্রীকে জবাই করে হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে ‘ঘাতক’ স্বামী হীরা চৌধুরী (৩০)। বৃহস্পতিবার (২৭ মে) বিকেলে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ফাহমিদা খাতুনের আদালত জবানবন্দি রেকর্ড করেন।

হীরা চৌধুরী ফতুল্লা মডেল থানার পূর্ব লামাপাড়া এলাকার ওমর চৌধুরী তুহিনের ছেলে। এবং খুনের শিকার গৃহবধূ তানজিদা আক্তার পপি ফতুলার বক্তাবলীর রাজাপুরের মৃত আলী আশরাফের মেয়ে। তাদের ঘরে তুষার (১০) ও তোয়াফ (৬) নামে দুটি পুত্র সন্তান রয়েছে।

২৬ মে সকাল ভোর সাড়ে ছয়টার দিকে হীরা চৌধুরী স্ত্রীর হাত পা মুখ বেঁধে ছুরি দিয়ে জবাই করে হত্যা নিশ্চিত করে। পরে খবর পেয়ে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ রক্তমাখা ছুরিসহ তাকে গ্রেফতার করে। পরে বৃহস্পতিবার সে দোষ স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিতে রাজি হওয়াতে পুলিশ তার বিরুদ্ধে রিমান্ড আবেদন না করে আদালতে প্রেরণ করে।

কোর্ট পুলিশের ইন্সপেক্টর মো. আসাদুজ্জামান হীরা চৌধুরীর স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তবে, জবানবন্দিতে সে কি বলেছে সে বিষয়ে মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা বলতে পারবেন বলে জানান।

এ বিষয়ে ফতুল্লা থানার মামলার তদন্ত কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক (এসআই) জাকির মাসুদ গ্রেফতার হীরার বরাত দিয়ে জানিয়েছেন, হীরা তার স্ত্রীর সাথে প্রতিদিনই শারীরিক সম্পর্ক করতে চাইতেন। কিন্তু এতে সায় ছিল না স্ত্রীর। ঘটনার দিনও সে স্ত্রী সংস্পর্শে যেতে চাইলে বাধাপ্রাপ্ত হন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে সে তার স্ত্রীর হাত পা মুখ বেঁধে ছুরি দিয়ে জবাই করে হত্যা নিশ্চিত করে।

উপরে