NarayanganjToday

শিরোনাম

শনিবার ওলামা পরিষদের সম্মেলনে শামীম ওসমান


শনিবার ওলামা পরিষদের সম্মেলনে শামীম ওসমান

নারায়ণগঞ্জের সদর উপজেলার আলীরটেকে ইসলামী মহা সম্মেলন করবে ওলামা পরিষদ। আলীরটেক ইউনিয়ন ওলামা পরিষদের উদ্যোগে এ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমান।

আগামী শনিবার (২০ মার্চ) বিকেল ৪টায় আলীরটেক ডিক্রিরচর ঈদগাহ মাঠে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে।

ইসলামী মহা সম্মেলনে আলোচনা করবেন বাহাদুরপুর আস্তানার পীরজাদা মবিন উদ্দিন আহমাদ নওশীন মিয়া, দারুল উলূম দেওবন্দের শিক্ষা সচিব আফজাল কাইমুরি, মাদরায়ে নুরে মদীনার মহাপরিচালক নুরুল ইসলাম ওলীপুরী, মুফাসসিরে কুরআন আব্দুল খালেক শরীয়তপুরী, আলীরটেক ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান জাকির হোসেন, আলীরটেক মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা আব্দুস সাত্তার সরকার, জেলা ওলামা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক জাকির হুসাইন কাসেমী, মহানগর ওলামা পরিষদের সভাপতি ফেরদাউসুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক হারুনুর রশিদ প্রমুখ।

এর আগে সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক মাসদাইর কবরস্থান হাফিজিয়া মাদরাসা বিলুপ্তি, চাষাড়া বাগে জান্নাত মাদরাসায় হস্তক্ষেপ এবং মাওলানা আব্দুল আউয়ালের বিরুদ্ধে অপপ্রচারের অভিযোগে মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর বিরুদ্ধে সমাবেশ ও সংবাদ সম্মেলন করেছিল ওলামা পরিষদের নেতাকর্মীরা। সেইসময় ওলামা পরিষদের সমাবেশ ও সংবাদ সম্মেলন নিয়ে সিটি মেয়র বলেছিলেন, আসন্ন সিটি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে তার বিরুদ্ধে সাম্প্রদায়িক উসকানি দেওয়ার চেষ্টা চলছে। নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের আওয়ামী লীগের সাংসদ একেএম শামীম ওসমানের ইন্ধনে তাঁর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে বলেও দাবি করেছিলেন সিটি মেয়র আইভী।

১২ ফেব্রুয়ারি চাষাঢ়ায় অনুষ্ঠিত হওয়া সেই সমাবেশে সিটি মেয়র ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর বিরুদ্ধে বিষোদগার করেছিলেন ওলামা পরিষদের নেতারা। সিটি মেয়রের উদ্দেশ্যে কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য প্রদানসহ তাকে বুড়িগঙ্গা নদীতে নিক্ষেপ করারও হুমকি প্রদান করা হয় ওই সমাবেশ থেকে। সমাবেশে আইভীর কাল হাত ভেঙ্গে দাও গুড়িয়ে দাও স্লোগানও দেয়া হয়। প্রয়োজন হলে নারায়ণগঞ্জে আর একটা শাপলাচত্বর হবে বলে হুশিয়ারি দেন তারা।

সমাবেশে বক্তারা দেবোত্তর সম্পত্তি দখল, হকার উচ্ছেদ, আগামী সিটি নির্বাচন নিয়েও কথা বলেন। তারা মেয়রের ধর্মীয় বিশ্বাস, পোশাক নিয়েও কটাক্ষ করেন। মেয়রের নির্বাচনী প্রচারণার একটি ছবিকে মন্দিরে দেবতার সামনে মাথায় সিঁদুর দিয়ে প্রণাম করারও অপব্যাখ্যা দেন তারা। সেই সমাবেশে হকার নেতাদের পাশাপাশি শহর-ফতুল্লা-সিদ্ধিরগঞ্জের শামীম ওসমানপন্থী ক্ষমতাসীন দলের কর্মীদের উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়। সিটি এলাকার বাহিরের থেকেও লোকজনকে আনা হয় সমাবেশে। সেই সমাবেশে ছিলেন মহানগর ওলামা পরিষদের সভাপতি মাওলানা ফেরদাউসুর রহমান, জেলা ওলামা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন কাসেমী, মহানগর ওলামা পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা হারুন অর রশিদ প্রমুখ।

এদিকে আলীরটেক ইউনিয়ন নারায়ণগঞ্জ-৫ আসনের সংসদ সদস্য সেলিম ওসমানের সংসদীয় এলাকায় অন্তর্ভুক্ত। কিন্তু অতিথি করা হয়েছে নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমানকে। মেয়র ঘনিষ্ঠ নেতাকর্মীদের দাবি আইভীর বিরুদ্ধে ওলামা পরিষদের সমাবেশ ও সংবাদ সম্মেলনে তারা যেসব অভিযোগ তুলেছিলেন তার কোনটির ভিত্তি ছিলনা। কিন্তু শামীম ওসমানের ইন্ধনে তাঁর বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করা হচ্ছে বলে মেয়র যে দাবি করেছিলেন সে বিষয়টি এখন অনেকটাই পরিষ্কার।

উপরে