NarayanganjToday

শিরোনাম

খোকা‌কে কায়সা‌রের কড়া হুঁ‌শিয়ারী


খোকা‌কে কায়সা‌রের কড়া হুঁ‌শিয়ারী

পৌরসভা নির্বাচনকে কেন্দ্র করে একটি মহল আওয়ামী লীগকে ধ্বংস করার ষড়যন্ত্র চালাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন সোনারগাঁয়ের সাবেক সংসদ সদস্য কায়সার হাসনাত। তিনি বলেন, লিয়াকত হোসেন খোকা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দয়ায় সংসদ সদস্য হয়েছেন। তিনি এখন বিএনপি-জামাতের সাথে আতাঁত করে আওয়ামী লীগকে ধ্বংস করার জন্য মাঠে নেমেছেন।

শনিবার (১৬ জানুয়ারি) বিকেলে পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডে টিপরদী ঈদগাহ মাঠে এক কর্মীসভায় এইসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, বিএনপি-জামাত জোট সরকারের সময় থেকে নির্যাতিত হয়েছেন আমাদের নেতাকর্মীরা। এই আওয়ামীলীগ আজকে আপনার দয়ায় সৃষ্টি হয় নাই। এই নেতাকর্মীরা আপনার হাতে সৃষ্টি হয় নাই, তারা সৃষ্টি হয়েছে বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হসিনার আদর্শে। রাজনীতিতে ষড়যন্ত্র থাকবেই এবং ভয় পাওয়ার কিছু নাই। আমাদের নেতাকর্মীরা কিভাবে ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করতে হয় তা জানে।

তিনি হুশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, একটি গোষ্ঠী আছে যারা লাঠির ভয় দেখিয়ে ও হুমকি দিয়ে আওয়ামী লীগকে দাবাইয়া রাখতে চায়। আওয়ামী লীগকে নৌকায় ভোট দেওয়ার থেকে বিরত রাখবে এমন কোন শক্তি এই সোনারগাঁয়ে পয়দা হয় নাই। বিএনপির অধ্যাপক রেজাউল করিম ও বিএনপি-জামাত জোট সরকারকে সোনারগাঁও থেকে আপনারাই উৎখাত করেছিলেন। আমাদের নেতাকর্মীরা আজকের খেলোয়াড় না। তারা অনেক খেলা দেখিয়েছে।

আওয়ামী লীগ নেতা কায়সার হাসনাত বলেন, বিএনপি-জামাত, জাতীয় পার্টি সিন্ডিকেটের মাধ্যমে শেখ হাসিনার উন্নয়নকে বাধাগ্রস্থ করতে দিবো না। এই নির্বাচন আমাদের প্রত্যেকটি পৌরসভা আওয়ামী লীগের নির্যাতিত ত্যাগী নেতাকর্মীদের অস্তিত্বের নির্বাচন। যদি কোন গুলি, লাঠির আঘাত আসে প্রথমে আমাদের নেতাকর্মীদের উপর আসবে তারপর আপনাদের উপর আসবে। কোন নেতাকর্মীর গায়ে আমরা আঁচড় লাগতে দিবো না। তৃণমূল আওয়ামী লীগের কারণে এখনো সোনারগাঁও আওয়ামী লীগ টিকে আছে। তৃণমূল আওয়ামী লীগ যদি ঐক্যবদ্ধ থাকে তাহলে কোন পরাশক্তি আমাদেরকে দমন করতে পারবে না।

পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি তৈয়ব আলীর সভাপতিত্বে কর্মীসভায় আরও উপস্থিত ছিলেন, নারায়ণগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য মাহফুজুর রহমান কালাম, মোগরাপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আরিফ মাসুদ বাবু, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি রফিকুল ইসলাম নান্নু, নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান মাসুম, আওয়ামী লীগ নেতা মোস্তফা কামাল নিলু, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গাজী আমজাদ ও পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর লায়ন মোশারফ হোসেন প্রমূখ।

উপরে